গভীর সম্পর্কও নষ্ট হয় এই তিন বিষাক্ত ভুলে

অনেক শক্তপোক্ত ও গভীর সম্পর্ক নষ্ট হতে পারেবিয়েসংক্রান্ত কিছু ভুলের কারণে। বিশেষ করেযারা সদ্য বিয়ে করেছেন তাদের জন্য বিষয়টিগুরুত্বপূর্ণ বলেই মনে করেন টেক্সাসের হাস্টনেরসম্পর্কবিষয়ক বিশেষজ্ঞ জন গ্রে। তিনি প্রায়ইনানা সমস্যা নিয়ে আসা দম্পতিদেরকাউন্সেলিং করেন। তার মতে, অন্তত ৩টিবিষাক্ত ভুল সম্পর্ককে নষ্ট করতে যথেষ্ট। এগুলোজেনে নিন।১. অতীতের ভুল নিয়ে সঙ্গীকে দোষারোপকরামানুষ ভুল করে। যেকোনো সময় তার ভুল হয়েযেতেপারে। আপনার সঙ্গী যখন কোনো ভুল করেই বসেন,তখন তাকে ভবিষ্যতের জন্য জমা করে রাখারদরকার নেই। অনেকেই মনে মনে ভেবে নেন যে,এখন কিছু বলা যাবে না। সময়মতো ঠিকই বলাহবে।অথচ অন্য কিছু করা উচিত আপনার। জন বলেন,ভুলের সময়টাতে সঙ্গীকে বরং বোঝাতে হবে।তার ভুল ধরিয়ে দিয়ে তাকে সচেতন করতে হবে।যে ভুল করছেন, তার মাথায় তখন সঠিক বিষয়টাআসে না। এ জন্যই তো ভুল করছেন তিনি। কিন্তু ওইসময় ভুল ধরিয়ে না দিয়ে ভবিষ্যতে দোষারোপকরা সম্পর্ক নষ্টর অন্যতম কারণ হয়ে দাঁড়ায়।২. বিবাহিত জীবন ভিন্ন হবে না ধরে নেওয়াহয়তো বিয়ের আগে দুজন চুটিয়ে প্রেম করেছেন।মনে হতে পারে, বিবাহিত জীবন ভিন্ন আর কীহবে? বিয়ের একটা কাগজ আর এমন কী বদলেদেবে? কিন্তু যখন আপনি সামাজিক ওআইনগতভাবে একজন মানুষকে জীবনসঙ্গীহিসাবে ঘোষণা দিলেন, তখন আগের জীবন থেকেঅনেক কিছুই বদলে গেল। আসলে প্রেমের জীবনেআপনার ওপর চাপ হয়তো কম ছিল। কিন্তু এখনঅনেক দিক থেকে চাপ বেড়ে গেছে। আপনিসঙ্গীর সঙ্গে সুখে-দুঃখে সব সময় এক থাকার জন্যপ্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়েছেন। বিয়ের পরের জীবনকেআলাদা না ধরে নিলেই বিপদ। নানা ধরনেরসমস্যার সৃষ্টি হবে। বিষাক্ত হয়ে উঠবেজীবন।৩. ব্যক্তিগত সমস্যার কথা বাবা-মাকেজানিয়ে দেওয়াএটি অন্যতম জটিল সমস্যা বলে মনে করেন জনগ্রে। যদি নিজেদের অযাচিত সমস্যার কথাঅভিভাবক পর্যায়ে আগেই জানিয়ে দেন, তোবিষয়টি আর ব্যক্তিগত পর্যায়ে থাকল না।হয়তোনিজেরাই সব ঠিক করে ফেলতে পারতেন। তাইসমস্যা দেখামাত্রই আলোচনায় বসে পড়ুন।এটাকে বড়দের কাছে যেতে দেবেন না। তাহলেইসব বরবাদ হয়ে যাবে। আসলে বড়দের কাছ থেকেসমাধান আসে এমন সমস্যার ধাঁচ ভিন্ন। তাইব্যক্তিগত সমস্যা নিজেদের মধ্যেই সমাধান করেফেলুন।সূত্র : হাফিংটন পোস্টআরো বিস্তারিত জানতে ভিজিট করুন

47 total views, 1 views today

mm
About Rubel 3257 Articles
আমার Youtube Channel (Movie Bangla) আশা করি সবাই ভিজিট করুন।

Be the first to comment

Leave a Reply