HomeHacking Newsব্লু হোয়েল গেম এর ব্যাখ্যা, গেম খেললে ৫০ তম স্তরে মৃত্যু অনিবার্য!!!!! Sshot সহ!!!! [ ★ Collected Post ★ ]

ব্লু হোয়েল গেম এর ব্যাখ্যা, গেম খেললে ৫০ তম স্তরে মৃত্যু অনিবার্য!!!!! Sshot সহ!!!! [ ★ Collected Post ★ ]

About Blogger (Total 3257 Blogs Written) 311 Views

contributor

আমার Youtube Channel (Movie Bangla) আশা করি সবাই ভিজিট করুন।

No thumbnail

পোস্ট টি খুব গুরুত্বপূর্ণ সতর্ক বার্তা! তাই ফেইসবুক থেকে কপি করে,,কিছু পরিমার্যন করে আপনাদের সামনে উপস্থাপন করছি!!! কারণ- এটি সবার জানা দরকার!!!!!ব্লু হোয়েল ( Blue whale ) গেম, যেইভিডিও গেম খেললেই সে আত্মহত্যাকরতে পারে।।।।বাংলাদেশেও পৌঁছে গেছে ‘ব্লুহোয়েল’ গেমস। আর এই গেমসেরনেশায় পড়ে রাজধানীতে আত্মহত্যাকরেছে এক কিশোরী। গত বৃহস্পতিবাররাতে সেন্ট্রাল রোডের বাসায়নিজের পড়ার কক্ষে ফ্যানের সঙ্গেঝুলন্ত অবস্থায় অপূর্বা বর্ধন স্বর্ণারলাশ উদ্ধার করে পুলিশ।।।অ্যাডভোকেট সুব্রত বর্মনের মেয়েএবং ফার্মগেটের হলিক্রস স্কুলেরঅষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিল সে।নিহতের পরিবার ও পুলিশ সূত্রেজানা গেছে, স্বর্ণা বিদ্যালয়েরফার্স্ট গার্ল ছিল। ওয়াইডব্লিউসিএহাইয়ার সেকেন্ডারি গালর্স স্কুলেপ্রথম থেকে পঞ্চম শ্রেণি পর্যন্তসম্মিলিত মেধা তালিকায় তারঅবস্থান ছিল প্রথম ।।।অ্যাপ স্টোর , প্লে স্টোর , ইন্টারনেটবা গুগল কোথাও খুঁজে পাবেন না এই ‘ব্লু হোয়েল ‘গেম , খুঁজে পেতে পারেনকারো পাঠানো কোনো গোপনলিংকের মাধ্যমে । এটি একটিসুইসাইড গেইম অর্থাৎ গেম খেললেমৃত্যু অনিবার্য ।।।আপনি আমাকে প্রশ্ন করতে পারেন –একটি গেম খেললে কিভাবে মৃত্যুহবে ? কি বলেন ডাক্তার সাহেব !।।ওয়েট , আমি ব্যাখ্যা দিচ্ছি ।।।‘ ব্লু হোয়েল ‘ বা Blue whale এর অর্থনীল তিমি । নীল তিমিরা মৃত্যুরআগে সাগরের তীরে উঠে আসে –তারা আত্মহত্যা করে বলে অনেকেরধারণা ! একারণেই গেমের নাম রাখাহয়েছে ‘ Blue whale ‘ বা নীল তিমি ।মনে রাখবেন – গেমটি বাধ্য করেতার ইনস্টলকারীকে সবগুলো স্তরখেলার জন্য ।‘ ব্লু হোয়েল ‘ গেমটি ৫০ টি লেভেলেবিভক্ত । F57 নামক রাশিয়ানহ্যাকার টিম গেমটি তৈরি করে ।২০১৩ সালে তৈরি হয়েছিলো গেমটি, কিন্তু ২০১৫ সালে VK. com নামকসোশ্যাল মিডিয়ায় তুমুল জনপ্রিয়তাপায় এবং প্রচুর ডাউনলোড হয় গেমটি। ফিলিপ বুদেকিন নামক রুশ হ্যাকারযে কিনা সাইকোলজির ছাত্র ছিলোএবং ভার্সিটি থেকে বহিষ্কারহয়েছিলো – তার মাথার বুদ্ধিথেকেই জন্ম নেয় এই গেমটি ।রাশিয়ান আইন শৃঙ্খলা বাহিনীতাকে গ্রেফতারের পর সে জানায়হতাশাগ্রস্হদের পৃথিবী থেকেনিশ্চিহ্ন করে দেবার জন্যই সেগেমটি বানিয়েছে । হতাশা গ্রস্হদেরপৃথিবীত বেঁচে থাকার কোনোঅধিকার নেই ।।।রাশিয়ায় এ গেম খেলে মৃতেরসংখ্যা ১৫১ জন , এবং রাশিয়ারবাইরে মারা গেছে ৫০ জন । জুলিয়াওভা ও ভের্নিকা ওভা নামক দুই বোনপ্রথম এই গেইমের শিকার । গেমটির৫০ তম লেভেলে গিয়ে ছাদ থেকেলাফিয়ে ওরা সুইসাইড করেছিলো ।জুলিয়া ওভা মৃত্যুর ঠিক আগেসোশাল নেটওয়ার্কে নীল তিমিরছবি আপলোড দিয়ে লিখেছিলো – ‘The end ! ‘।।গেমটি মূলত একটি ডার্ক ওয়েভের( dark wave ) গেম । ডার্ক ওয়েভ হলোইন্টারনেটের অন্ধকার জগৎ । মনেরাখবেন – গেমটি আপনি একবারডাউনলোড করলে আর কখনোইআনইনস্টল করতে পারবেন না । গেমটিআপনার ফোনের সিস্টেমে ঢুকেআপনার আপনার আই পি এড্রেস ,মেইলের পাসওয়ার্ড , ফেসবুকপাসওয়ার্ড , কনট্যাক্ট লিস্ট ,গ্যালারী ফটো এমনকি আপনারব্যাংক ইনফর্মেশান ! আপনারলোকেশান ও তারা জেনে নিচ্ছে !।।‘ ব্লু হোয়েল ‘ গেম ওপেন করা মাত্রআপনাকে একজন এডমিন পরিচালনাশুরু করবে । আপনাকে জিজ্ঞেস করবে– ‘ গেমটি খেলা শুরু করলে আপনিকোনোভাবেই এর থেকে বেরিয়েআসতে পারবেন না , আপনি সর্বশেষেমৃত্যু বরণও করতে পারেন , আপনি কিচ্যালেন্জ গ্রহন করতে আগ্রহী ? ‘।।আপনি ইয়েস বা নো অপশনের মধ্যে ‘ইয়েস ‘ অপশন ক্লিক করা মাত্রই পাদিয়ে দেবেন মৃত্যু ফাঁদে ।।।গেমটির প্রথম দশটা লেভেল খুবইআকর্ষনীয় । ইউজার এডমিন কিছুমজার মজার নির্দেশনা দেন – যেমনরাত তিনটায় ঘুম থেকে উঠে হরর ছবিদেখা , চিল্লাচিল্লি করা , উঁচুছাদের কিনারায় হাঁটাহাঁটি করা ,পছন্দের খাবার খাওয়া ইত্যাদিনির্দেশনা দিতে দিতে এডমিনহাতিয়ে নেবেন আপনার পার্সোনালইনফরমেশন । প্রথম দশ টা লেভেল পারকরার পর আপনাকে তৈরি করা হবেপরবর্তী দশটি লেভেলের জন্য ।পনেরো লেভেল পর্যন্ত চলবে আপনারইনফরমেশান হাতানোর কাজ ! পনেরোলেভেলের পর আপনাকে কঠিন মিশনদেয়া শুরু হবে ! যেমন অ্যাডমিনআপনাকে বলতে পারে আপনার হাতেব্লেড দিয়ে নীল তিমির ছবি আঁকুন !প্রথম বিশটা চ্যালেন্জ অতিক্রমকরার পর অ্যাডমিন তার কৌশলপরিবর্তন করতে শুরু করে। ।।আপনি টেরই পাবেন না প্রথম বিশধাপে সংগ্রহ করে ফেলা আপনারতথ্যের উপর ভিত্তি করে আপনাকেমোহাক্রান্ত বা হিপনোসিস পদ্ধতিপ্রয়োগ শুরু করা হবে ।আপনি তখন ভাববেন এই গেম ছাড়াআপনার বেঁচে থাকা অসম্ভব ।আপনাকে শীতের দিনে খালি গায়েঘুরতে বলা হবে , বাবার পকেট থেকেটাকা চুরি করা , বন্ধুর মোবাইল চুরিকরা , আপনার সবচেয়ে প্রিয় বন্ধুটারসাথে দুর্ব্যবহারের মিশন দেয়া হবেআপনাকে ! আবার এসবের প্রমাণেরছবি বা ফটো এডমিনকে পাঠাতেহবে আপনার ! এভাবেই কৌশলে বন্ধু ওপরিবারের সদস্যদের থেকে কৌশলেআলাদা করে ফেলা হবে আপনাকেএবং আপনি পৌঁছে যাবেন পঁচিশলেভেলে !পঁচিশ লেভেলের পর নির্দেশনাআসবে মাদক বা ড্রাগ নেবার !এভাবেই সম্মোহিত করে করেআপনাকে তিরিশ লেভেল পর্তিরিশ তম লেভেল আপনি অতিক্রমকরার পর গেম এডমিন হঠাৎ আপনারসাথে একটু চিট শুরু করবে !একত্রিশতম লেভেল আনলক করবে না , এদিকেআপনি হয়ে উঠবেন ক্রেজী !।।তারপর কিছুদিন আপনাকে সারপ্রাইজদিয়ে হঠাৎ এডমিন – বলবে একত্রিশতম লেভেল আনলকড ! আপনার নগ্নছবি চাওয়া হবে এই স্তরে ! আপনিহিপনোসিস ও মাদকের কারণেনিজের নগ্ন ছবি পাঠাতেও চিন্তাকরবেন না , ড্রাগ নেবার র মাত্রাবাড়াতে থাকবেন আপনি ! এরপরনির্দেশনা আসবে আপনারভালোবাসার মানুষের সাথে সেক্সকরে গোপনে ছবি তুলে আপলোডকরতে বা নিজের শরীরে একাধারে শখানেক সুঁই ফোটাতে এবং ফটোআপলোড করে পাঠাতে ।এভাবেই চলে যাবেন আপনি চল্লিশতম লেভেলে !।।এবার আপনি ভীত হয়ে গেমারটিমকে অনুরোধ করবেন আপনাকেমুক্তি দেবার জন্য ! আপনি কাঁদবেন ,হাতজোড় করবেন , চাইবেন গেমটিআনইনস্টল করার জন্য !তখন শুরু হবে ব্ল্যাকমেইলিং ! গেমারটিম বা এডমিন তখন আপনারইপাঠানো সকল তথ্য ফাঁস করে দেবারহুমকি দেবে , আপনি বাধ্য হয়েপ্রবেশ করবেন একচল্লিশ তম স্তরে !।।একচল্লিশ থেকে ঊনপন্চাশ তমলেভেলে আপনি প্রচন্ড হতাশ আরমাদকাসক্ত হবেন ……. পন্চাশ তমস্তরে আপনাকে মুক্তির শর্ত দেয়াহবে ! বলা হবে আপনাকে নিজেরশরীরে অ্যানাসথেসিয়ার ড্রাগক্যাটামিন পুশ করে তাদের কে ছবিপাঠাতে এবং নিশ্চিত দশ তলারচেয়েও উঁচু কোনো ছাদের একেবারেকিনারায় দাঁড়িয়ে যদি সেলফিআপলোড দিতে পারেন তবে আপনিমুক্ত !আপনি সেটা পারবেন না আর , কারণশরীরে পুশ করা ক্যাটামিন আপনারমস্তিষ্কে চলে যাবে ততোক্ষণে !আপনি মোবাইলের স্ক্রীণে তখননির্দেশ আসবে – ‘ নিচের দিকেতাকাও ! লাফ দাও , মুক্তি পাও ! ‘।।আপনি মুক্তি পেতে গিয়ে আত্মহত্যাকরবেন !এই ব্লু হোয়েল গেমটিতে ব্যবহারকরা হয়েছে চমৎকার গ্রাফিক্স ,ব্যাক গ্রাউন্ড মিউজিক ভীষণ করুন !All i want ও Ranway গানের মিউজিকব্যবহার করা হয়েছে ।দুটো মিউজিক শুনলেই শরীরের রক্তহীম হয়ে যাবে !।।সবশেষে বলবো –এসব আজেবাজে গেম যাতে কেওআপলোড করবেন না ,নিজেকে ভালোবাসুন , পরিবারকেসময় দিন , জীবনকে ভালোবাসুন।Colected

9 months ago (October 12, 2017)