Homeযৌন বিষয়ক টিপসমোটা মেয়েদের সাথে তৃপ্তি সহকারে যৌন মিলন করার উপায়

মোটা মেয়েদের সাথে তৃপ্তি সহকারে যৌন মিলন করার উপায়

About Blogger (Total 3257 Blogs Written) 350 Views

contributor

আমার Youtube Channel (Movie Bangla) আশা করি সবাই ভিজিট করুন।

No thumbnail

পাশাপাশি যৌন সঙ্গমের ঠিককৌশল সম্পর্কে অজ্ঞতা, সঙ্গমেরপুর্বে সঠিক ভাবে উত্তেজিতকরতে না জানা, যৌন উত্তেজকস্থান সমূহ না চেনা ইত্যাদিবিভিন্ন কারণে সঙ্গমের চূড়ান্তসুখ লাভ করা সম্ভব হয় না।আসলেমোটা লোকদের সম্পর্কেসামাজিক দৃষ্টি ভঙ্গিঅনেকাংশেই নেতিবাচক।ডায়েটিং করা বা দীর্ঘদিন ধরেআংশিক উপোস করার কারণেমোটা লোকদের যৌন বাসনা নষ্টহয়ে যেতে পারে।পাশাপাশিযেসব মহিলাদের ওজ কমতে শুরুকরে, তাদের স্বাভাবিক মাসিকচক্রও অস্বাভাবিক হয়ে যেতেপারে।মোটা বা মেদ বহুল মহিলারাসাধারণত এমন ধারণা পোষন করেথাকে যে, তাদের পক্ষে কোনোপুরুষকে যৌন সুখ দেয়া সম্ভব নয় বাতাদেরকে কেউ পছন্দ করেনা।ফলেতাদের মধ্যে আত্মবিশ্বাসেরঅভাব দেখা দেয়।এই ধরনেরআত্মবিশ্বাস হীনতা তাদের যৌনজীবনকে অধিকাংশ ক্ষেত্রেবাধাগ্রস্ত করে।মোটা পুরুষদের বেলায়ও এধরনেরসমস্যা দেখা যায়।প্রত্যাখ্যানহবার ভয়, যৌনসঙ্গম করতে অক্ষম,বা সঙ্গিণীকে যৌন তৃপ্তিদানেঅক্ষম বা তাদেরকে কেউ পছন্দকরেনা এমন ধরনের ধারণাতাদেরকে যৌন সঙ্গম থেকে বিরতরাখে।এ ধরনের মানসিক দুশ্চিন্তওসামাজিক দৃষ্টভঙ্গি বা সুযোগেরঅভাব ইত্যাদি বিভিন্ন কারণেদীর্ঘদিন ধরে যৌনসঙ্গম থেকেবিরত থাকলে তারা যৌনসঙ্গমেঅক্ষম হয়ে যেতে পারে।আসলেএটি বর্তমানে একটি সামাজিকসমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে এবংএবিষয়ে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশেঅনেক গবেষণাও হয়েছে।গবেষণায়কিছু ফলাফল উল্লেখ করা হলো-মোটা মানুষের বেলায় শারীরিকযৌন চাহিদা স্বাভাবিক পর্যায়েথাকে।তবে সঙ্গমের বেলায়অতিরিক্ত মোটা হওয়ার কারণেকিছু সমস্যা দেখা দিতে পারে।বিবাহিত জীবনেও যৌনসঙ্গমইমোটা লোকদের আনন্দ লাভেরগুরুত্বপূর্ণ উপায়। অবিবাহিতমোটা লোকদের বেলায়ও দেখাযায় তাদের স্বাভাবিকযৌনবাসনা রয়েছে।তবে মানসিকদুশ্চিন্তার কারণে অর্থাৎ তাদেরসাথে কেউ যৌনসঙ্গম করতে পছন্দকরেনাএমন ধারনা তাদেরযৌনজীবনকে বাধারস্ত করে।প্রয়োজনীয় কিছু যৌন আসনেরকৌশল উল্লেখ করা হলো- পুরুষরধান আসন : এই আসনটিকেসাধারণত মিশনারি আন বলা হয়েথাকে।সাধারণত মহিলাটি তারপুরুষসঙ্গীর চেয়ে মোটা হলেএধরনের আসন বেশি কার্যকর হয়।এক্ষেত্রে মহিলাটি চিৎহয়ে শুয়েদুই পা কটির দিকে বাঁকিয়েরাখবে এবং হাঁটু সম্পূর্ণ বাঁকিয়েদুই উরু যতটা সম্ভব ফাঁক করে ধরবে।এতে করে তার যোনি মুখ সম্পূর্ণভাবে সঙ্গম উপযোগী হবে।তারভুড়ি খুব বড় হলে এসময় সে দুইহাতে যোনি মুখ থেকে তা ওপরেরদিকে টেনে ধরতে পারে।অন্তত পক্ষে পুরুষ সঙ্গীটি তার উরুরমধ্যে সঙ্গম উপযোগী আসন নেয়ারআগ পর্যন্ত এমনটি করা যেতেপারে।এতেও যদি সঙ্গম করা কষ্টকরহয় তবে মহিলাটি একটি বাএকাধিক বালিশ তার নিতম্ব বাপাছার নিচে রাখতে পারে।এক্ষেত্রে সঙ্গম করা সহজতর হয়কারণ এতে করে যোনি মুখ ওপরেউঠে আসে।নিতম্বের নিচেএকাধিক বালিশ স্থাপন করলে শুধুসঙ্গমকরাই সহজ হয় না বরংসঙ্গমের ক্ষেত্রে ভিন্নতাও আসে।সঙ্গম কালে পা দুটি বিভিন্নউচ্চতায় উঠালে সঙ্গমের ভিন্নরকম স্বাদ পাওয়া যায়।যৌন বিশেষজ্ঞরা বলে থাকেনমাত্র তিন ইঞ্চি পরিমাণ উচুনিকরলে যৌনসঙ্গমের অনেকপরিবর্তন আসতে পারে।এই আসনটিকে মেইল আপারেইট আসনও বলাযেতে পারে।প্রয়োজন মনে করলেসঙ্গমের সময় পুরুষটি তার নিতম্বেরওপর বসে নিতে পারে।এক্ষেত্রেদুই হাত দিয়ে শরীরের উত্তেজকঅংশ গুলোতে শৃঙ্গার করতেপারে।মোটা মেয়েদের সাথেকিভাবে যৌন মিলনকরলে আনন্দ বেশিপাওয়া যায়?সিম আসন : এই আসনটিও পেছন দিকদিয়ে যৌন সঙ্গম করার মত একধরনের আসন।এক্ষেত্রে মহিলাটিএকদিকে ফিরে শুয়ে হাটু বাকিয়েওপরে পা যতটা সম্ভব মাথারদিকে টেনে তুলবে এবং নিচের পাসোজা থাকবে। এতে করে যোনিমুখ ওপর দিয়ে বা পেছন দিয়েসঙ্গমে উপযোগী হবে।এসময় পুরুষটিতার দুটি পা মহিলাটির নিচেরপায়ের দুদিকে রেখে হাটু গেড়েবসে পেছন দিকে দিয়ে যৌনসঙ্গমকরতে পারে।প্রয়োজন হলে পুরুষটিতার হাটুর নিচে বালিশ দিয়েনিতে পারে।মহিলাটি পুরুষটির চেয়ে অধিকমোটা হলে এধরনের আসনেযৌনসঙ্গম করা যেতে পারে।এআসনটি একটু জটিল তবে চেষ্টাকরলে বা চর্চা করলে এই আসনেসঙ্গম করা যেতে পারে।এক্স-আসন : এটি অনেকটা টি-বর্গীয় আসনের মতই।এক্ষেত্রেমহিলাটি চিৎ হয়ে শুয়ে পাদুটিবাকিয়ে উরুদ্বয় যতটা সম্ভব ফাককরে ধরবে।এই ময় যোনি পথেপুরুষাঙ্গ প্রবেশ করাবার পরমহিলাটি তার পা দুটি একসাথেকরবে এবং পুরুষটির শরীরে তখন ৪৫ডিগ্রি কোণ সৃষ্টি করবে।এতে করেদুই জনের অবস্থান ইংরেজিবর্ণমালা এক্স-এর আকারের হবে।তবে এটি করার সময় মহিলাটিরযোনির পেশি এমন ভাবে চেপেরাখা প্রয়োজন যাতে পুরুষাঙ্গ বেরহয়ে যায়।এই আসনে পরস্পরের ভুড়িসঙ্গমের বেলায় বাধা সৃষ্টিকরেনা।ওরাল সেক্স : ওরাল সেক্স উপভোগকরতে জানলে অত্যন্ত আনন্দদায়কহতে পারে।সাধারণত মোটামহিলারা ওরাল সেক্সের বেলায়বেশ পটু হয়ে থাকে।তবে যেজিনিসটি মনে রাখা প্রয়োজন তাহলো- ওরাল সেক্স আসলে একতরফাকিছু নয়।মুখ মেহনের মাধ্যমেযৌনসঙ্গী দুজনই পরস্পরকে আনন্দদিতে পারে।যৌনবিশেষজ্ঞরা ৬৯ পদ্ধতিরওরাল সেক্সের পরামর্শ দিয়েথাকেন।মুখ মেহন বা ওরাল সেক্সযৌনসঙ্গমের অংশও বটে।এরমাধ্যমে যৌন সঙ্গমকে আরোঅধিক আনন্দময় করা যেতে পারে।সঙ্গম বিহীন যৌনতা : যোনি পথেপুরুষাঙ্গ প্রবেশ না করিয়েও অনেকসময় যৌন আনন্দ লাভ করা যায়।যেমন- যোনি পথে কৌশলে আঙ্গুলপ্রবেশ করিয়ে মহিলাটিকে যৌনআনন্দ দেয়া যায় যৌন উত্তেজকআলোচনা, শৃঙ্গার, হাসিঠাট্টা,স্পর্শকরা, উত্তেজক বই পড়া বাউত্তেজক ছবি দেখা ইত্যাদিবিভিন্ন ভাবে যৌন আনন্দ লাভকরা যায়। মনে রাখা প্রয়োজনপরস্পর খুব কাছাকাছি থাকারফলে সঙ্গমের আনন্দ লাভ না করতেপারলেও অন্তত ভালো বাসারআনন্দ পাওয়া যায়।

9 months ago (October 20, 2017)