সেক্স করার আগে স্বামী বা বয়ফ্রেন্ড অর্থাৎ পুরুষ সেক্স- পার্টনারের কর্তব্য

০১। স্বামী বা বয়ফ্রেন্ড বা পুরুষ সেক্স-পার্টনারের কর্তব্য হলো,স্ত্রী বা গার্লফ্রেন্ড বা নারী সেক্সপার্টনারকে প্রিয়তমা জ্ঞানে বাসত্যিকারের কামনারনারী ভেবে নিয়ে নিজের তৃপ্তিরসঙ্গে সঙ্গে তারও দৈহিক ও মানসিকতৃপ্তি বিধান করা। নিজেরকামনা পরিতৃপ্ত করাই সম্ভোগের একমাত্রলক্ষ্য হওয়া উচিত নয়।০২। কোন প্রকার বল প্রয়োগকরা আদৌ বাঞ্ছনীয় নয়।একথা মনে রাখতেই হবে।০৩। চুম্বন, আলিঙ্গন , ঘর্ষন, নিপীড়নইত্যাদি নানাভাবে স্ত্রী বা গার্লফ্রেন্ডবা নারী সেক্স পার্টনারের মনে পূর্ণকামভাব জাগিয়ে তারপর তারসঙ্গে সহবাসে রত হওয়া প্রতিটি পুরুষেরপ্রধান কর্তব্য।০৪। স্ত্রী বা গার্লফ্রেন্ড বা নারীসেক্সপার্টনার ধীরে ধীরে আত্নসমর্পণনা করা পর্যন্ত তার সঙ্গে কখনও সঙ্গমবা সহবাসে লিপ্ত হওয়া উচিত নয়।০৫। নারী কখনও নিজের যৌনউত্তেজনাকে মুখে প্রকাশ করে না।তবে সেটা অনেকটা লক্ষণদেখে বুঝে নিতে হয়।০৬। নারীর উত্তেজনা ধীরে ধীরেআসে-আবার তা ধীরে ধীরে তৃপ্ত হয়।পুরুষেরউত্তেজনা আসে অকস্মাৎ আবারতা অকস্মাৎ শেষ হয়। তাই নারীর পূর্ণকামভাব না জাগিয়ে সহবাসবা সঙ্গমে মিলিত হলে নারী পূর্ণতৃপ্তি পেতে পারে না। এরকমকরা যৌননীতিবিরুদ্ধ। এতে নারী পূর্ণতৃপ্তি পায় না- এর জন্যে সে অন্য পুরুষপর্যন্ত গমন করতে পারে। দাম্পত্যজীবনে অনেক বিপর্যয় এরজন্যে আসতে পারে।০৭। পুরুষ রতি ক্রিয়ার প্রথমে যথেষ্টউত্তেজিত হয়। কিন্তু একবার বীর্য্যপাতঘটে গেলে সঙ্গে সঙ্গে আবাররতিক্রিয়ায় পুরুষের আর পূর্বের মতউত্তেজনা থাকে না।নারীর উত্তেজনা কিন্তু ভিন্ন প্রকারের।প্রথম রতিক্রিয়ায় সে বিশেষ আগ্রহদেখায় না। কিন্তু যখন রতিক্রিয়া কিছুক্ষনচলে তখন ক্রমশঃ তার আগ্রহবাড়তে থাকে। পরে পুরুষের বীর্য্যপাতঘটলেও নারীর রতিক্রিয়ার আগ্রহক্রমশঃ বাড়তে থাকে।এইজন্য কামশাস্ত্র লেখকেরা বলেন-নারীর সহিত রতিক্রিয়া আরম্ভকরতে হলে একেবারেই প্রথম থেকেইরতিক্রিয়া করা উচিত নয়। প্রথমে নারীরসঙ্গে কথাবার্তা বলা দরকার, তারপরতাকে চুম্বন, দংশন , নখচ্ছেদ ও আলিঙ্গনইত্যাদি প্রাথমিক ক্রিয়া করা উচিত।এ সকল প্রাথমিক রসালাপ অঙ্গ-মর্দন, অধর,চুম্বন ইত্যাদিতে যখন নারীরকামেচ্ছা প্রবল থেকে প্রবলতর হবেতখনসঙ্গমের জন্য প্রস্থত হওয়া দরকার।০৮। একেবারে দর্শন মাত্রেইরতিক্রিয়া আরম্ভ করা উচিত নয়।তাতে নারীর কামেচ্ছা তেমন জাগ্রত হয়না। কাজেই উভয়েরপক্ষে রতিক্রিয়া তেমন আনন্দদায়ক হয় না।০৯। ক্রুদ্ধ বা চিন্তিতমেজাজে স্ত্রী সহবাস উচিত নয়। মেজাজপ্রফুল্র না হলে সময় নেয়া প্রয়োজন।ততোক্ষন পর্যন্তপুরুষকে অপেক্ষা করে প্রেম-ভালোবাসারভাব ফুটিয়ে তোলাই কর্তব্য।১০। সঙ্গম বা সহবাসে লিপ্ত হওয়ারআগে নারীর শরীরে প্রকৃত বা আসলউত্তেজনা এসেছে কীনা তাওবোঝা প্রয়োজন, প্রকৃত বা আসলউত্তেজনা না এলে সঙ্গমবা সহবাসে নারীর পূর্ণতৃপ্তি আসতে পারেনা।

330 total views, 4 views today

mm
About Rubel 3257 Articles
আমার Youtube Channel (Movie Bangla) আশা করি সবাই ভিজিট করুন।

Be the first to comment

Leave a Reply